আবরার হত্যা : সাতক্ষীরা থেকে আরো এক আসামি গ্রেফতার

নিজস্ব জেলা প্রতিবেদক : বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় এজাহারনামীয় আরো একজনকে গ্রেফতার করেছে ডিএমপির গোয়েন্দা ও অপরাধতথ্য বিভাগ। শুক্রবার বিকালে সাতক্ষীরা জেলার ভোমরা স্থলবন্দর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতের নাম মো. শামীম বিল্লাহ (২০)। তিনি বুয়েটের মেরিন ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ১৭তম ব্যাচের ছাত্র। তার বাবার নাম- আমিনুর রহমান, তার গ্রামের বাড়ি সাতক্ষীরার ইছাপুরে। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত ১৮ জন গ্রেফতার হলেন।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, শামীম বিল্লাহ শুক্রবার সাতক্ষীরা হয়ে ভারতে পালিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি গ্রহণ করছিলেন।

এর আগে আজ সকালে সিলেট থেকে মামলার এজাহারভুক্ত আরেক আসামি মাজদুল ইসলামকে গ্রেফতার করে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট।

বুয়েটের তড়িৎ কৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র আবরারকে গত রবিবার রাতে শেরেবাংলা হলের ১০১১ নম্বর কক্ষ থেকে ডেকে নিয়ে ২০১১ নম্বর কক্ষে নিয়ে বেধড়ক পেটান বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। তাকে ক্রিকেটের স্ট্যাম্প ও লাঠিসোটা দিয়ে শরীরের বিভিন্ন জায়গায় প্রচণ্ড মারধর করা হয়। নির্মম পিটুনিতে আবরার মারা যান। ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসক জানিয়েছেন, তার মরদেহে অসংখ্য আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

এদিকে হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় ১৯ জনকে আসামি করে গত সোমবার সন্ধ্যার পর চকবাজার থানায় হত্যা মামলা করেন নিহত আবরারের বাবা বরকত উল্লাহ।

Print Friendly, PDF & Email