ঢাকা,রবিবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ৬ ফাল্গুন ১৪২৪, ২ জমাদিউস সানি ১৪৩৯ ঢাকা,রবিবার, ১১ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ২৯ মাঘ ১৪২৪, ২ জমাদিউস সানি ১৪৩৯
ব্রেকিং নিউজ:
দিয়াজ হত্যা মামলা: চবি শিক্ষক আনোয়ার সাময়িক বহিষ্কার

নয়াবার্তা প্রতিবেদক : দিয়াজ ইরফান চৌধুরী হত্যা মামলার অন্যতম আসামি, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) সাবেক সহকারী প্রক্টর ও সমাজতত্ত্ব বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন চৌধুরীকে চাকরি থেকে সাময়িকভাবে বহিষ্কার করছে কর্তৃপক্ষ। রবিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের (ভারপ্রাপ্ত) রেজিস্ট্রার প্রফেসর ড. মোহাম্মদ কামরুল হুদার স্বাক্ষরিত এক নোটিশে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়েছে, সমাজতত্ত্ব বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন চৌধুরী গত বছরের ১৮ ডিসেম্বর আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। আদালত তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করায় চবি কর্মচারী (দক্ষতাও শৃঙ্খলা) সংবিধির ১৫(এ) ধারায় তাকে ওইদিন হতে পুনরাদেশ না দেয়া পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকরি থেকে সাময়িক ভাবে বহিষ্কার করা হলো। তবে সাময়িকভাবে বহিষ্কার থাকাকালীন সময়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়মানুযায়ী ভাতাদি পাবে। এর আগে আনোয়াকে চাকরি থেকে বহিষ্কারের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে আবেদন করে ছিল দিয়াজের পরিবার। তবে প্রশাসন এ বিষয়ে কোন গুরুত্ব না দেয়ায় পরবর্তীতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে উকিল নোটিশ পাঠায় দিয়াজের বোন অ্যাডভোকেট জুবাইদা ছরওয়ার চৌধুরী নিপা।

চাকরি থেকে বহিষ্কারের বিষয়ে জানতে পেরে দিয়াজের বোন বলেন, দেরি করে হলেও বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন আনোয়ারকে শিক্ষকতা থেকে বহিষ্কার করছে। সেজন্য বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে ধন্যবাদ জানাই। তবে একজন হত্যা মামলার আসামি কারাগারে থেকেও কিভাবে বেতন ভাতাদি পায়। তার বেতন ভাতাদি যেন বন্ধ করা হয় সেজন্য প্রশাসনের কাছে অনুরোধ জানাই।

প্রসঙ্গত, চবির সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক দিয়াজ ইরফান চৌধুরী হত্যা মামলার আসামি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক সহকারী প্রক্টর আনোয়ার হোসেন চৌধুরীকে গত ১৮ ডিসেম্বর কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত। উচ্চ আদালতের ২২ সপ্তাহের জামিন শেষে ১৮ ডিসেম্বর তিনি চট্টগ্রামের মুখ্য মহানগর হাকিম মুন্সী মশিয়ার রহমানের আদালতে অত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেন। শুনানি শেষে জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠান আদালত।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের ২০ নভেম্বর নিজ বাসায় ফ্যানের সাথে ঝুলানো অবস্থায় দিয়াজের মরদহে পাওয়া যায়। পরে তার পরিবারের পক্ষ থেকে প্রক্টর আনোয়ার হোসেন, বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আলমগীর টিপুসহ ১০জনকে আসামি করে মামলা করেন দিয়াজের বোন জুবাইদা ছরওয়ার চৌধুরী নিপা। বর্তমানে মামলাটি সিআইডিতে তদন্তাধীন রয়েছে বলে জানা যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *