তথ্য অধিদপ্তরের প্রধান কর্মকর্তার পদবী কি তা জানেনা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়!

নিজস্ব বার্তা প্রতিবেদক : তথ্য অধিদপ্তরের প্রধান কর্মকর্তার পদবী কি তা জানেনা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়।আর তাই তথ্য অধিদপ্তরের প্রধান হিসেবে ‘প্রধান তথ্য কর্মকর্তা’র স্থলে ‘মহাপরিচালক’ উল্লেখ করে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়কে চিঠি দিয়েছে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়।এই চিঠিতে সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে আটক ও হেনস্তায় আলোচিত স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব কাজী জেবুন্নেসা বেগমকে নিয়ে সংবাদ ঠেকাতে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়কে নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হয়েছে।

গত বুধবার (১৯ মে) তথ্য মন্ত্রণালয়কে এ চিঠি দেওয়া হয়। এতে বলা হয়, রাষ্ট্রের একজন কর্মকর্তা এবং সাধারণ নাগরিক হিসেবে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব কাজী জেবুন্নেসা বেগমের ব্যক্তিগত, পারিবারিক, সামাজিক ও পেশাগত জীবনের মর্যাদাহানি হচ্ছে।

এ কারণে অনতিবিলম্বে বিষয়টি সকল প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়াকে কাজী জেবুন্নেসা বেগম, অতিরিক্ত সচিব সম্পর্কে অসত্য সংবাদ, ছবি বা ভিডিও ক্লিপ প্রচার করা থেকে বিরত রাখার জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হয়। সেই চিঠিতে তথ্য অধিদপ্তরের প্রধান হিসেবে ‘প্রধান তথ্য কর্মকর্তা’র স্থলে ‘মহাপরিচালক’ উল্লেখ করা হয়েছে। গণমাধ্যমকর্মীরা বলছেন, এই চিঠিতে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বহীনতার পরিচয় ফুটে উঠেছে।